Translate

Tuesday, December 31, 2019

বাংলাদেশের আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ড। অভিজ্ঞতার আলোকে। পার্ট: ০২

আমরা যখন কাজ শিখেছি- আমাদেরকে কেউ হাতে ধরে কাজ শিখায় নাই। একটা জরিপ করেছিলাম একবার ২০০৫/২০০৬ সালে- সারা বাংলাদেশে ২৫০০ মানুষ ইন্টারেষ্টেড ছিলো সর্ব সাকুল্যে সারা বাংলাদেশ থেকে ফ্রি ল্যান্সিং এবং আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ডে। তো সেই সময়ে যারা উল্লেখযোগ্য পরিমানে চেষ্টা করে গেছে এই ইন্ডাষ্ট্রি কে ডেভেলপ করার জন্য তাদের প্রত্যেককে চিনি এবং তাদের সাথে থাকার চেষ্টা করেছি। আমরা মন থেকে চেয়েছি এইটা বাংলাদেশে গ্রোথ করুক বা ধীরে ধীরে জনপ্রিয়তা লাভ করুক। সারাদিনে যদি ২ ডলার উপার্জন করতে পেরেছি তাতেই চিতকার চেচমেচি করেছি সারা বাংলাদেশে খুশীতে। পোষ্টিং দিছি- কনগ্রাটস পাইছি আর ভেবেছি একদিন হয়তো সারাদিন ই ডলার উপার্জনের পথ খুলে যাবে। আজকে হয়েছেই তাই কিন্তু সততা টুকু কমে গেছে ১০০%। তখন সততা ছিলো ১০০%।  আমাদের কে যে কাজ দিছে ওডেস্ক এ বা যে কোন মার্কেট প্লেসে - তাতে ভিডিও ইন্স্রটাকশন দেয়া থাকতো ক্লায়েন্ট রা দিতো। আমরা একে অপরকে ফ্রি তে কাজ শিখাতাম। সারা দেশের ভেতরে প্রজেক্ট কমপ্লিট হয়ে যাবার পরে ভিডিও টা শেয়ার করতাম।তখন কার দিনে ব্যবহার করতাম-

উইন্ডোজ লাইভ
ইয়াহু মেসেন্জার
উইন্ডোজ মেসেন্জার 
স্কাইপে

আমার ফেভারিট ম্যাসেন্জার ছিলো উইন্ডোজ লাইভ মেসেন্জার। ফাইল পত্র শেয়ার করাটা সহজ ছিলো সাথে ছিলো লাইভ ক্যামেরা অপশন। অনেকের সাথে চ্যাট করে কাজ শিখেছি সারা বিশ্ব থেকে- অনেক ক্লায়েন্ট এর সাথে ভিডিও ম্যাসেন্জার এ কথা বলেছি। সরাসরি লাইভে এসে কাজ দেখিয়ে দিয়েছে- সেই  মোতাবেক কাজ করেছি। ভালো রেটিং ও পেয়েছি। প্রত্যেকেই চেষ্টা করেছি প্রত্যেকেেই যেনো ভালো করে। কিন্তু এখনকার সিচুয়েশন দেখতাছি ভিন্ন। নিজেদেরে মধ্যে ফাইট লেগে যায়- ফাইট তো হবে সারা বিশ্বের মার্কেট প্লেসের ছেলে পেলে দের সাথে- কোয়ালিটি নিয়ে। আর এখন  অনলি বাংলাদেশীদের মধ্যে ফাইট শুরু হয়ে যাইতাছে। গুটি কয়েক মার্কেট প্লেসে র মধ্যে লাইফটা সীমাবদ্ধ করে ফেলানেরা একটা বদ্ধমূল ধারনা জন্মে গেছে সবার মধ্যে। যে কাজ শিখেই আপওয়ার্কে জয়েন করে ফেলবো- অবশ্য ই আপওয়ার্ক থেকে কাজ করতে হবে। ফলে নিজেদের মধ্যে তৈরী হইতাছে অযাচিত যুদ্ধ। যেটা অবাঞ্চিত এবং অযাচিত। কাজ জানলে আপনার সামনে হাজারো মার্কেটপ্লেস খোলা আছে-আপনার যেটা মনে চায় সেটাতেই আপনি জযেন করে কাজ করতে পারেন। প্রথম যেদিন দেখলাম মার্কেটপ্লেসে জব পোষ্টিং এ ক্লায়েন্ট রা উল্লেখ করা শুরু করলো যে বাংলাদেশীরা এপ্লাই করতে পারবে না- সেদিন কষ্ট পেয়েছিলাম। ভাবলাম এতো কষ্ট করে সকলের পরিশ্রমের ভিত্তিতে গড়ে তোলা ইন্ডাষ্ট্রি তে এতো বড় অপমান যে বাংলাদেশীরা আবেদন ই করতে পারবে না- কারন কি সার্চ করা শূরু করলাম। কয়েকজন ক্লায়েন্ট এর সাথে কথাও বললাম- তারা জানালো যে কিছূ ছেলে পেলে রা তাদের সাথে চিট করেছে- ডলার নিয়ে আর কাজ করে দেয় নাই। তখন ভুল ভাল বলে ক্লায়েন্ট এর কাছ থেকে অগ্রীম টাকা নিতো কারন ইউরোপিয়ান আমেরিকান ছেলে মেয়েরা দেখতে যেমন সুন্দর তেমনি যে কোন মানুষের সাথে তাদের প্রথম ব্যবহার টাও থাকে সুন্দর। তো সেই সুন্দর মনের মানুষগুলোর সাথে যারা আমাদের দেশের নাম ভাঙায়া যারা চিট করেছে বা করতাছে তারা কি বাংলাদেশী নাকি বাঙালী নাম ধারী জারজ? পরে দেখলাম আসলেই এরা নামধারী জারজ যাদের একমাত্র চিন্তা আজ পর্যন্ত এই ইন্ডাস্ট্রি টা নষ্ট করে ফেলা। তারা তাদের জীবনে কোন মার্কেটপ্লেস থেকে ১ ডলার ও উপার্জন করতে পারে নাই কিন্তু তারা মিলিয়ন ডলার নষ্ট করার মতোন বুদ্ধি নিয়ে ঘুরে বেড়াবে। অনেক ব্যাপার স্যাপার দেখি ইদানিং যা আমরা সেই ২০০৫/২০০৬ সালে চিন্তাও করি না। কিছু বলি-

  • টাকা দিয়ে কোর্স করে  বিভিন্ন সোর্স থেকে। কাকে টাকা দিতাছে সে বাস্তবে চিনে ও না। ২/১ টা ক্লাস করিয়ে দিয়ে ছুড়ে ফেলে দিতাছে  রাস্তাতে। পরে সে কান্না কাটি করে এমন এমন পদ্ধতি গ্রহন করতাছে (যেমন পেইড কোর্স বিক্রি করে চলা)   ফিউচার এ সে আর ফ্রি ল্যান্সিং করার কোন উপায় পাবে না। কারন তার ব্রেইন হ্যামারেজ হয়ে যাইতাছে। একটা ষ্টুডেন্ট যার মেন্টালিটি ফ্রেস- ছোটবেলা থেকে যার মেধা কে সে যতন করে রেখেছে যে সুযোগমতোন ব্যবহার করবে সে তার পূর্ন মেধাটাই এখানে ব্যবহার করতে পারতো এবং এখানে সে তার জীবন গড়ে ফেলাইতে পারতো। কিন্তু আমাদের দেশের এই অসাধূ চক্র যারা এই ফ্রি ল্যান্সিং এবং আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ড টাকে বিনা কারনে নষ্ট করে ফেলানোর চিন্তা করে ফেলাইতাছে- এতে তাদের কি লাভ বলতে পারেন? এরা কি তাদের বংশধর যারা বিনা কারনে ৭১ এ আমাদের বাঙালী বাবা মা ভাই বোন আত্মীয় স্বজন কে মেরে ফেলাইছে? একটা জিনিস তো সহজে বুঝে যাবার কথা বাঙালীে ছেলে মেয়ে দের যে - সবকিছূ ইউটিউবে দেয়া আছে। তাহলে কেনো আমরা টাকা দিয়ে পেইড কোর্স করতে যাইতাছি যেটা এমন ধরনের এমাউন্ট যা একজন ছাত্র সহজে ম্যানেজ করতে পারার কথা না। একজন ছাত্রের পক্ষে ১৪/১৫/১৬/২০ হাজার টাকা ম্যানেজ করা এক ধরনের অসম্ভব ব্যাপার কিন্তু সে তার বাসা থেকে এই ব্যাপারে প্রেশার দিয়ে আদায় করতাছে যা তার বাবা মা বুঝতাছে না। ঠিক যেনো সেই ২০০১-২০৭ পর্যন্ত এক ধরনের অসুস্থ চক্রান্ত যেমন বিভিন্ন ধরনের ক্লিক বিজনেস গড়ে তুলেছিলো সেরকম- একেকজন ৭/৮  লাখ টাকা খরচ করে পথে বসে গিয়েছিলো -যাদেরকে পরবরতীতে আমরা নিজের হাতে টেনে তুলেছি নানা ধরনের কাজ বা মোটিভেশনাল স্পিচ দিয়ে- তাদের মধ্যে অনেকেই এখন ইষ্টাবলিশ। বড় বড় প্রজেক্টের কাজ করে নিজের পরিবারের বা বাবা মার কাছ থেকে নেয়া টাকা পয়সা শোধ করে এখন বহাল তবিয়তে সংসার করে যাইতাছে। বর্তমানে ইন্টারনেটে যে পেইড কোর্স করানো হইতাছে এখানে আমার কাছে যে প্রব্লেমটা ধরা পড়তাছে তা হইতাছে- ইন্টারনেটে না জেনে না চিনে টাকা দেবার কারনে ছেলে পেলে দের সামনে একটা প্রতিবন্ধতকতা তৈরী হইতাছে যা হইতাছে সে ক্লায়েন্ট এর কাছ থেকে কাজের বিনিময়ে ডলার চাইবার পরিমান কমাইয়া দিতাছে যেটা সে নিজে উপার্জন করতে পারতো। কারন ইন্টারনেটে বসে সে ডলার ও উপার্জন করত চাইতাছে আবার টাকা ও উপার্জ ন করতে চাইতাছে। গরীব দেশ বাংলাদেশ- টাকার পরিমান সীমিত ১৭ কোটি মানেুষের দেশে সর্ব সাকুল্যে বাজেট হয় বর্তমানে ১০ লক্ষ হাজার কোটি টাকা। অথচ ডলারের দিক থেকে বাংলাদেশর রিজার্ভ এখণ আকর্ষনীয়। বাংলাদেশ সরকারের নিজস্ব কোন মারকেটপ্লেস নাই বা নিজস্ব কোন পেমেন্ট প্রসেসিং গেট ওয়ে ও নাই যার মালিকানা একদম বাংলাদেশ সরকারের। ডলারের রিজার্ভ সংঘবদ্ধ চক্রান্ত চুরিও করে ফেলেছে কয়েকবার যা বর্তমান সরকারের গাফিলতি- আর কোন দেশ থেকে ডলার চুরি যায় না - বাংলাদেশ থেকে যায় কি করে? অন্যান্য দেশ কি ধরনের নেটওয়ার্ক বা েইনফ্রা ষ্টাকচার ব্যবহার করতাছে- কিংবা বাংলাদেশে যারা এক্সপার্ট লেভেলের আইটি স্কলার তাদের সাহায্য নেয়া হইতাছে না কোনো? এদেশে লক্ষের ও অধিক সূর্য সন্তান আছে যারা উন্ন্ত বিশ্বে সফটওয়্যার এবং  আইটি এক্সপার্ট। তাদের সাহায্য নিলেও বাংলাদেশের ব্যাংকিং সফটওয়্যার অনেক দেশের থেকে উন্নত হয়ে যাইতো যেখানে প্রতিনিয়ত হ্যাকারদের ভয় থাকতো না?  ফ্রি ল্রান্সিং এবং আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ডে টাকার জগত টা সীমিত আর ডলারের জগত টা সীমাহীন ব্যাপার  স্যাপার। সো ডলারের জগতে পা রাখার আগেই যদি আপনি ইন্টারনেটে জগতে টাকার ক্ষেত্রে একটা বাধাতে পড়ে যান তাহলে কি আপনার মেধাটা পরিপূর্ন ব্যাবহার হইলো। আর তাদেরকে কি আপনারা মানুষ মনে করেন যারা আপনাদের কাজ শিখানোর কথা বলে এক্সট্রিম লেভেলে র একটা প্রেশার দিয়ে আপনার জমানো টাকা পয়সা বা আপনার বাবা মা বা পরিবারের কাছ থেকে টাকা পয়সা ভিক্ষা করে নিয়ে যাইতাছে। হাজার হলেও একটা জিনিস মনে রাখা উচিত মুসলমানের জন্য ভিক্ষা করা হারাম। 
  • বেসিক ইন্টারনেটে না শিখেই লোভে পড়ে ইন্টারনেটে কাজের ব্যাপারে এগ্রেসিভ হয়ে যাবার চেষ্টা করে। আমার কাছে শতকরা ১০ জন আসে এরকম যে সে রেজিষ্ট্রেশন ই করতে পারে না। যে কিনা ইন্টারনেটে কোন ওয়েবসাইটে রেজিষ্ট্রেশনই  করতে পারে না সে কিভাবে কাজের জন্য নিজেকে যোগ্য করে গড়ে তুলবে। অসহনীয় পর্যায়ের ইন্টারনেটের দাম বা ভ্যালূ এদেরকে আরো পিছনে ফেলে দিতাছে। একসময় কার অত্যাচার আজো যেন বাংলাদেশে বর্তমান। মানুষের রক্ত ঘাম করা উপার্জনের পয়সা ইন্টারনেটের উচ্চ মূল্যের মাধ্যমে দিয়ে ঠিক যেন ১৯৪৫ -১৯৭১ এর প্রজন্মের স্বাক্ষী বহন করে চলতাছে। এদেরকে মদদ দিতাছে আরো এক শ্রেনী যারা কিনা জন্মান্তরে ই খারাপ। সে ক্ষেত্রে কাজ শিখার একমাত্র উপায় ইউটিউব থেকে ভিডিও প্রয়োজনে ডাউনলোড করে কাজ শিখা। ইউটিউবে ফ্রি ভিডিও দেয়া আছে ৯০%। একদম ফ্রি। কোন টাকাই খরচ করতে হবে না ইন্টারনেট প্রাইস দেয়া ছাড়া। প্রত্যেকের ভিতরেই ই্ংরেজী আছে। ই্ংরেজী গ্রামার না পড়ে আপনি স্কুল কলেজ পাস করে আসেন নাই। সো বুঝতে সমস্যা হবার কথা না । একটা ইংরেজী হলিউড সিনেমা দেখে ও অনেক কিছু বোঝা যায়। আপনি আগে নির্ভয়ে দেখা শুরু করেন- দেখবেন আপনার ই্ংরেজী ওকে হয়ে গেছে। প্রয়োজনে আপনি বিটিভির ইংরেজী সংবাদ টা দেখেন- ই্ংরেজী নিউজপেপার দেখেন- কম্পিউটারে বা ভালো মোবাইলে আপনি প্রতিদিন একটা করে ই্ংরেজী মুভি দেখেন। দেখবেন আপনার ইংরেজী কতো বেটার রুপ ধারন করে। 
  • ইন্টারনেটে বর্তমানে বাংলাদেশে বিভিন্ন ধরনের চিটার বাটপার বসে আছে। যারা ইনফিনিটিভ ডলার এর দুনিয়া ছেড়ে সীমিত টাকার দুনিয়ার মধ্যে কাড়াকাড়ি শুরু করেছে অথচ বুদ্ধিমান তো তারাই যারা ইউটিউবে বা গুগলে সার্চ করে কাজ শিখতাছে আর বন্ধুদের সাথে ডিসকাস করতাছে- নিজেরা টিম বানাই য়া কাজ করতাছে আর দেশ ও নিজের জন্য সম্মান বয়ে আনতাছে। ধরেন আপনি ফিভার মার্কেটপ্লেসে কাজ করবেন কিন্তু আপনি দেখে হতভম্ব হয়ে যাবেন ৫০+ টিউটোরিয়াল ফিভার নিজেই দিয়ে রেখেছে অনলাইনে। শুধূ দেখা আর এক্সপার্ট হয়ে যাওয়া। আমি ২০০৩ সাল থেকে ফ্রি ল্যান্সিং এবং আউটসোরসিং ওয়ার্ল্ডে র সাথে জড়িত। (২০০৩-২০১১ পার্ট টাইম এবং ২০১১- বর্তমান পর্যন্ত ফুলটাইম) বলতে গেলে আমরা কয়েক হাজার ছেলে পেলে একসাথে প্রথম থেকে এই জিনিসিটা ধরে রেখেছি । রাজনীতিবিদরা ও এই ব্যাপারে আমাদের চেয়ে কম জানে কারন তাদের প্রথম চিন্তা দেশের ক্ষমতায় থাকার ধান্ধা। আর আমরা ইন্টারনেট (সি মি উই ফোর- ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট) আসার পর থেকে একটা জিনিসই ভেবেছি কিভাবে সারা বাংলাদেশের মেধাকে কাজে লাগানো যায়। আর সেই চেষ্টাতে বর্তমানে ভাটা পড়ে যাচ্ছে কারন চোখের সামনে দেখতাছি - আমাদের চোখের সামনে পোষাকে স্মার্ট, কাগজে কলমে স্মার্ট, আচার আচরনে স্মার্ট, জীবন ধারনে স্মার্ট আর ইন্টারনেটে আইসা হইয়া যাইতাছে ব্যাক্কল- চিনে না জানে না ফট করে টাকা দিয়া বসতাছে আর দুইদিন পড়েুই চিটার  বাটপার গুলা লাপাত্তা হয়ে যাইতাছে বা এক শ্রেনীর কুলাঙ্গার দের দাপট দেখাচ্ছে আর প্রতারিত হয়ে স্মার্ট ছেলে মেয়ে গুলো  চোখের পানি ফেলাইতাছে- প্রতিনিয়তই অভিযোগ পাইতাছি আর কষ্ট ও পাইতাছি। এমন তো হবার কথা ছিলো না। একেবারে গনহারে সবাই যে খারাপ তা বলতাছি না। অনেকে আছে ট্রেনিং সেন্টার মেক করে সরকারের অনুমতি নিয়ে কোয়ালিফায়েড ছেলে পেলেদের মাধ্যমে কাজ শিখাচ্ছে- তারা ভালো। অনেকে আছে সামাজিক দায় বদ্ধতার জায়গা থেকে নাম মাত্র মূ্ল্যে একটা পারিশ্রামিক নিয়ে ইউটিউবে বা যে কোন লাইভি ভিডিও শেযারিং করে কািজ শিখাচ্ছে সেটাও রিজনেবল- যদি ও এখানে সরকারের একটা অনুমতির প্রয়োজন কারন যে কোন কোর্সেরই একটা প্রত্যয়ন থাকে- যেমন আমি একটা গ্রুপ চিনি যারা মাসে মাত্র ৩০০ টাকা করে নেয় একজন ষ্টুডেন্ট এর কাছ থেকে যেটা রিজনেবল বা সহনশীল  কিন্তু আরো কিছূ গ্রুপের প্রমান পাইলাম যারা ৪ মাসের কথা বলে ২০ হাজার টাকা নিতাছে আর ক্লাস করাচ্ছে (অনলাইন লাইভ ভিডিও শেযারিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে    এবং এমন এমন লাইভ শেযারিং প্রোগ্রাম ইউজ করতাছে যা সচরাচর পরিচিত না বা আমরা কমনলি ইউজ  করতাছি না। বাংলাদেশে একটা আইন আছে- টাকা নিতে হলে আপনাকে রিসিট দিতে হবে যেখানে সরকারের এপ্রুভালের প্রয়োজন। মিনিমাম আপনাকে মন্ত্রনালয় বা অধিদপ্তরের অনুমতি নিয়া আগাতে হবে। মন চাইলো আর সারা বাংলাদেশ থেকে উল্লেখযোগ্য পরিমানের টাকা নিয়ে ব্যবসা খুলে বসলাম তাহলেই তো হলো না। আপনি যে কোন ধরনের কোর্স করাবেন প্রফেশনালি- আপনি অনুমতি নিয়ে করেন। তাহলে সবধরনের ইন্টারনেট প্রেশার থেকে রেহােই পাওয়া যাইতো)। ২/৩ দিন আর তার পরেই লাপাত্তা। এরা আসলে কারা আর কোনে দেশের মার সন্তান যে বাংলা র সহজ সরল সাধারন ছেলে পেলে গুলোরে ধরা খাওয়ােইতাছে।
  • যাই হোক যে সকল প্রতারকরা প্রতারনা র ফাদে ফেলে ইন্টারনেটে টাকা পয়সা উপার্জন করতাছে(লাইভ শেযারিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে - তাদেরকে বলি আপনারা সত হোন। ানেষ্টলি করান যাতে কোন অভিযোগ না থাকে এবং কোর্স শেষে আপনি প্রত্যয়ন পত্র দেন এবং প্রথমে সরকারের নিজস্ব ডিপার্টমেন্ট থেকে অনুমতি নেন। গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার বলতে আমরা মুক্তিযুদ্ধে নিহত শহীদদের রক্তের বিনিময়ে একটি সরকার ব্যবস্থা কে বুঝাই।যেখানে আপনাকে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক স্বাধীন বাংলাদেশে র মন্ত্রনালয়/অধিদপ্তরের অনুমতি/লাইস্নেস নিয়ে কাজ শিখাতে পারবেন বলেই মনে করি।) তাদেরকে বলতে হয় আপনারা আলাদা নেটওয়ার্ক মেক করে নেন যেমন ম্যান - মেট্রোপলিটন এরিয়া নেটওয়ার্ক বা অফলাইন কানেক্টিভিটি। কারন আমরা যারা ফুলটাইম ফ্রি ল্যান্সার তাদের উপরে একটা চাপ পড়ে। আপনারা যেহেতু স্বাধীন ভাবে মানুষের কাছ থেকে টাকা নিতে পারতাছেন সো আমি বিশ্বাস করি আপনার যদি ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দলকে বলেন- তাহলে তারা আপনাদেরকে একটা আলাদা অফলাইন কানেক্টিভিটি সিষ্টেম বিল্ড আপ করে দিবে যেখানে খুব বেশী ইন্টারনেট ব্যবহারের পয়োজন পড়বে  না আর আপনারাও মনের মতো ইন্টারনেটের কথা বলে গ্রামে গঞ্জে চিটার বাটপারি ব্যবসা চালাইয়া যাইতে পারবেন এবং প্রয়োজনে যারা আপনাদের সাহায্য করবে তাদেরকে ভাগ বাটোয়ারা দিতে পারবেন (আমরা ছাড়া)। যেমন ল্যান - লোকাল এরিয়া নেটওয়ার্কেমর মাধ্যমে চ্যাট করা বা ফাইল আদান প্রদান করা যায় যেখানে ইন্টারনেটের প্রযোজন হবে না। সারা দেশে মোবাইল এর টাওয়ার আছে- ব্যাপারটা চাইলেই সহজ। অফলাইন ইন্টারনেট সেটআপ করা একদমই সহজ।
  • ইন্টারনেট শব্দটা ই্ংরেজী। সো কাইন্ডলি ইংরেজদের জলার /পাউন্ড/ইউরো উপার্জন করে নিজেও ধন্য হোন- দেশ ও জাতিকে ও ধন্য করুন। 



টু বি কন্টিনিউ--------চলবে। 

Saturday, December 28, 2019

বাংলাদেশের আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ড। অভিজ্ঞতার আলোকে ।

দিনে দিনে নানা কারনে আউটিসোর্সিং ওয়ার্ল্ড টাফ হয়ে যাইতাছে। এর কিছু কারন আমার চোখে লেগেছে। 

প্রথমেই জানাইতাছি একচেটিয়া ভাবে ব্যবসা করে গেছে একসময়কার দাপুটে ওয়েবসাইট ওডেস্ক। ২০০৩-২০১৫ টানা ব্যবসা করার পরে তারা বাংলাদেশ থেকে ব্যভসা গুটিয়ে চলে গেছে। চলে যাবার আগে তৈরী করে দিয়ে গেছে আপওয়ার্ক যেটাতে  একণ কাজ পাওয়া বা প্রোফাইল টিকাইয়া রাখা অনেক টাফ। 

একসময় কার খুব প্রচলিত ওয়েবসাইট  ই- ল্যান্স। তারা ও চলে গেছে বাংলাদেশ থেকে। ওডেস্ক এবং ইল্যান্স মিলে সম্মিলিত ভাবে অপারেশন চালাচ্ছে আপ ওয়ার্ক নামে। 

রিসেন্টলি চলে গেছে ক্লিক ব্যাংক । বাংলাদেশের অণ্যতম বড় এফিলিয়েট মার্কেটিং ওয়েবসাইট ছিলো। তারা তাদের এফিলিয়েট ফ্যাসিলিটি বাংলাদেশ থেকৈ বন্ধ করে দিছে।

সম্প্রতি বাংলাদেশে অপারেশন টার্গেট নিয়ে এসেছে মাষ্টারকার্ড। তারা নিজেরাই স্বনামে অপারেশন শুরু করেছে। প্রত্যেক ফ্যিল্যান্সার মাষ্টার কার্ড লোগো, পাইওনিয়ার মাষ্টারকার্ড লোগো, এটিএম, ব্যাংক উইথড্র এগুলোর সাথে পরিচিত। কয়েকবছর আগে তারা চালূ করলো পাইওনিয়ার ভ্যাংক টু ব্যাংক ইনফরেমেশন। আমি নিজে ১৫ বছর চেষ্টা করার পরে পাইছি পাইওনিয়ার কার্ড। এর মাঝে কন্টিনিউয়াস চেষ্টা করে  গেছি-১০/১২ বার রিকোয়েষ্ট করেছি কিন্তু কোনবারই কার্ড আমার হাতে এস পৌছাই নাই। এর মাঝে একবার চেষ্টা করলাম পাইওনিয়ার ব্যাংক টু বাংলাদেশ ব্যাংক  এ মার্কেটপ্লেস থেকে ইউথড্র দিতে- সাসসেস ও হলাম- চার্জ কাটলেঅ অনেক। শেষে ১৫/১৬ মাস আগে থেকে পাইওনিয়ার কার্ ব্যবাংক একাউন্ট  থেকে সরাসরি প্রাইভেট ব্যাংকে লেনাদেনা করতে পারলাম। 

আজো দেখা পাইলাম না ফুল ফেস পেপাল ডট কমের। অনেক ধরনের আশ্বাসে শেষ পর্যন্ত ১০০%  ফ্যাসিলিটিজ আর চালূ হিইলো না। যতোটুকু হয়েছে ততোটা ফ্রিল্যান্সারদের ডিমান্ডের উপরে ভিত্তি করে। এখর আর পারসোনাল একআউন্ট ওপেনের চিন্তা কেউ করে না। শুধূ ফ্রিল্যান্সারদের জণ্য ফুল ফেজ বিজনেস/মার্ন্ডাইজিং/ই কমার্স/পেপাল ডট মি একাউন্ট পাইলেই খুশী। আমাদের দেশ থেকৈ ছেলে পেলেরা যে পন্থা গুলো ব্যভহার করতাছে-

১) বিশ্বের বিভিন্ন দেশের বিজনেস সেকশানে বাংলাদেশের আইড কার্ড, কেডিট কার্ড, ব্যাংক ইনফরমেশন, পাইুনিয়ার ভ্যাংক ইনফরমেশন এবং ইন্টারন্যাশনাল ক্রেডিট কার্ড ভেরিফিকেশন করে কাজ চালাযে যাচ্ছে। 

এখন শুধূ ভেরিফায়েড ফ্রি ল্যান্সারদের জন্য ভিডিও ভেরিফিকেশনের মাধ্যমে হলে ও ফুল ফেস অপারেশন টা চা লু হলে অনেক কাজের সুবিধা হবে। 

২) পরিচিত বাংলাদেশী যারা দেশের বাহিরে থাকে (নাগরিক)তাদের নামে তৈরী করা পেপাল ডট কম একাউন্ট ব্যবহার করা যাইতাছে।

৩) অনেক সময় ক্লায়েন্ট নিজেই একাউন্ট দিচ্ছে ব্যভহার  করার জন্য।

আমি আমার ক্লায়েন্ট এর ভেরিফায়েড বিজনেস একাউন্ট ব্যবহার করি এবং বাংলাদেশ তেকে পেমেন্ট বিডি এর সাহায্য নিয়ে এক্সচেন্জ করে থাকি।

এখনো সারা বাংলাদেশে রয়ে গেছে স্বল্প গতির ইন্টারনেট। গ্রামাঞ্চলের বেশীর ভাগ ই ছেলে পেলে ই দ্রুত গতির ইন্টারনেট ব্যবহার কেরতে পারতাছে না। তারা ইউজ করতাছে মোবাইল ইন্টারনেট। মোবাইল ইন্টারনেট এ আবার বেশীর ভাগ সময়ে নেট ওয়ার্ক থাকে না। ফ্যি ল্যান্সিং ওয়ার্ল্ডে দ্রুত গতির ইন্টারনেট না থাকলে কেউই কাজ করতে পারবে না। দেশে ব্রড ব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহার করে লাষ্ট দেখা ৫০ লাখ লোক । আর মোবাইল ইন্টারনেট ব্যভহার করে কয়েক কোটি মানুষ। গ্রামে গঞ্জে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট কানেকশন না দিয়ে মোবাইল সেবা প্রদানকারী সংস্থাকে আর কতো বেনিফিট দেয়া- তাও তাদের ইনআরনেট প্যাকেজের দাম ও অনেক চড়া।

আরো আছে কিছু গাদামির মতো ব্যাপার। স্কুল কলেজ এ আমরা সবাই ইংরেজী পড়ে পাস করে সার্ফিকেট ম্যানেজ করে এসেছি। আর ইন্টারনেটে কাজ শেখার ব্যাপারে ইউটিউবের সাহায্য না নিয়ে  স্ক্রিন শেয়ার মেথডে কাজ শিকার চেষ্টা করতাছি । এ যেনো সাগরে সাতার না কেটে পুকুরে সাতার কাটাার মতো। সারা বিশ্ব থেকে সেরা সেরা লোকেরা ইউটিউবে ভিডিও মেক করে রেখেছে- তাদের ভিডিও না দেখে লোকালি আর কতোটা শেখা যাবে? এতে করে লাভ হেইতাছে গুটিকয়েক সুবিধাভোগী লোকজনের আবার অনেকে বলে দেশের শীর্ষস্থানীয় লোকজনদের ও। একই সাথে ব্রেইনটাও যাইতাছে যা আর কখনো ফ্রি ল্যান্সার এবং আউটসোর্সিং ওয়ার্ল্ডের জন্য পারফেক্ট নাও হইতে পারে- ঠিক যেনো এক ধরনের ব্রেইন ওয়াশ। স্কুল কলেজের ছেলে মেয়েদেরকে তাদের বাবা মার অনুমতি ছাড়া কাজ না শিখানো টা আমার মতে ভালো হবে ।

অনুমতি না নিয়ে হঠাত করে কাজে নেমে যাওয়াও এক প্রকার বাধা। কয়েকদিন কাজ করার পরে বাসা বাড়িতে অশান্তি- ঝামেলা এবং অপার সম্ভাবা কে নিজের কাছ থেকে সরিয়ে নেয়া। ফরে ভবিষ্যতের জ্যণ একটা ক্ষতিও হয়ে যওেয়া। আমার মতে যাদের সত্যিই দরকার তারাই সবসময় কাজ করে যাওয়া। আর যাদের দরকার নেই- তারা পড়াশোনার ক্ষতি না করে শুধূ অবসর সময়ে কাজটা অল্প অল্প করে শেখার চেষ্টা করা ইউটিউব দেখে দেখে - আর নিজেকে প্রিপেয়ার করে যাওয়া। হয়তো একসময় কাজে লাগতে পারে। অনেক েধরনের কোম্পানীই বাংলাদেশ থেকে চলে যাইতাছে । এখন নিজেকে ম্যানেজ করে প্রিপেয়ার করার পরেও ঢামেলায় পড়ে যাইতে হতে পারে। তারপরেও থেমে নেই সবাই। চেষ্টা এবং কাজ দুটোই চলতাঝছ সমান তালে।  সবাই মিলে ধরে রাখার চেষ্টা।  আরো অনেক নতুন নতুন পন্থা আছে- 

১)  এফিলিয়েট মার্কেটিং
২) পারসোনাল পোর্টফোলিও (ই কমার্স প্লাগ ইন) 
৩) পারসোনাল ক্লায়েন্ট ম্যানেজমেন্ট
৪) ইকমার্স স্টোর
৫) আরো কিছু পন্থা........চলবে।

Tuesday, December 10, 2019

Facebook profile or page post embed with blogger or blogspot new post.


You can create a new blog from http://www.blogger.com 
or from http://www.blogspot.com
Than you can apply this technique.
It will bring quality traffic for your profile or page post.
One more thing
Your profile and page should need to stay as a public.
Other wise the post will not show accurately.
Facebook Page post embed with blogger post
http://masudbcl.blogspot.com or http://www.masudbcl.xyz
Happy freelancing!!!!

#blogger
#bloggertips
#bloggertricks
#bloggertechniques
#bloggertechnique
#embedcode
#facebookembedcode
#facebookpostembedcode
#Facebookpostwithblogger
#Facebookpostwithblogspot

Monday, December 9, 2019

How do you will use Google Drive? Bangla Tutorial. কিভাবে গুগল ড্রাইভ ব্...


আপনি কিভাবে গুগল ড্রাইভ বভ্যহার করবেন?
গুগল ড্রাইভ অনলাইনের ক্লাউড ষ্টোরেজ এবং ফাইল শেয়ারিং সিষ্টেম এর ডিটেইলস। এই ভিডিওতে আপনি দেখতে পারবেন:

কি কি ক্লাউড ষ্টোরেজ আছে পপুলার?
কি কি ফাইল শেয়ারিং সিষ্টেম পপাুলার?
কিভাবে ফোল্ডার আপলোড করবেন গুগল ড্রাইভে?
কিভাবে ইমেজ আপলোড করবেন গুগল ড্রাইভে?
কিভাবে জিপ ফাইল আপরোড করবেন গুগল ড্রাইভে?
কিভাবে .doc ফাইল তৈরী করবেন গুগল ড্রাইভে?
কিভাবে .xls ফাইল তৈরী করবেন গুগল ড্রাইভে?

Saturday, November 30, 2019

SEOClerk Bangla Tutorial Part 03 Buyer section


Join free with the world best SEO Marketplace.
One time registration with eight marketplace membership.
Get 5$ bonus from me if you want to buy any 5$ services from me.
http://www.seolistly.com/marketplace

In this video you will get details about:
Buyer - My shopping section.
Buyer- My Payment section.
Add funds to Balance section Bangla tutorial.

You will also get some discussions about Paypal.com using policy from Bangladesh and BTC/LTC/ETH using policy from Bangladesh.

#seoclerk
#SEOClerk
#SEOClerkBanglaTutorial
#SEOClerkBuyersectiontutorial
#SEOClerkMyshoppingtutorial
#SEOClerkBuyerTutorial
#SEOClerkMypaymentstutorial
#SEOCLerksAddfundtutorial
#BTCdiscussion
#ETHDiscussion
#LTCDiscussion
#BangladeshPaypal
#PaypalBangladeshusing
#PaypalBangladesh
#Paypalbd
#Paymentbd
#Bangladeshdollarbuysell
#Dollarbuysell

Thursday, November 21, 2019

Use these net analysis Best Practices for Real on-line info



Critical thinking, reliable strategies, good sense, and patience
As of 2019, over one.5 billion sites exist (about two hundred million of those pages are active), and plenty of don't seem to be reliable sources of knowledge. To with success sift it all, use legitimate analysis — the repetitive filtering and patient winnow of knowledge to realize the depth of understanding that a polemic topic deserves. Analysis needs patience to check the total breadth of writing on one topic, and demanding thinking skills to question info till it is valid.
Whether you are a student, an expert, or just somebody wanting to form a cogent argument or explore a footing, use the following pointers to conduct serious, real analysis on-line.
Before controversy a degree concerning politics, medicine, animal care, regulation, or alternative hot-button problems, analysis the subject and support your position with verifiable facts. Regurgitating social media posts, quoting biased media hosts, or citing partial or spun statistics erode credibleness within the eyes of any opponent with crucial thinking skills.
Decide if the subject is difficult analysis, Soft analysis, or both
Hard and soft analyses have totally different expectations of information and proof. Confirm the arduous or soft nature of your topic to purpose your search strategy wherever it'll yield the foremost reliable analysis results.
Hard analysis describes scientific and objective analysis, that tested facts, figures, statistics, and measurable proof are completely crucial. In arduous analysis, the credibleness of each resource should be able to face up to intense scrutiny.
Soft analysis describes topics that are subjective, cultural, and opinion-based. Readers tend to not scrutinize soft analysis sources the maximum amount.
Combined soft and arduous analysis needs the foremost work as a result of it broadens search needs. Not solely does one would like arduous facts and figures; however you furthermore may should dialogue against robust opinions to form your case. Politics and international economy topics are the largest samples of topics requiring hybrid analysis.
Choose that on-line Authorities are appropriate for your analysis Topic
Hard analysis topics need professionally and academically revered proof. Associate opinion diary won't cut it; look for publications by students, experts, and professionals with credentials. The invisible internet is very important for arduous analysis, and often, the most effective place to start out is that the same because it has continuously been: the library.
Here are doable on-line content areas for hard-research topics:


Libraries: WorldCat provides content and services from 10,000 libraries round the world.
Academic journals: These tutorial search engines will purpose you within the right direction.
Government sites and publications: Check .gov sites like USA.gov, the NHTSA, and therefore the Library of Congress.
Scientific and medical content: Check sites sanctioned by legendary authorities.
Unbiased sources: Non-government websites that don't seem to be influenced by advertising and obvious support (for example, shopper Watch).
Archived news: Check the Google Way back Machine net Archive to check pages and sites that aren't any longer active.
Exploring soft-research topics typically means that collating the opinions of revered on-line writers. Several soft-research authorities don't seem to be teachers, however rather writers WHO have sensible expertise in their fields. Typical sources include:

Blogs, as well as personal opinion and amateur author blogs
Forums and discussion sites (for example, Reddit)
Consumer product review sites (for example, ZDnet and Epinions)
Commercial sites that is advertising-driven
Tech and laptop sites (for example, Overclock.net)
Social media (such as Instagram, Twitter, and Facebook)
Use a spread of Search Engines and Keywords
Now comes the first legwork: victimization totally different search engines and 3 to 5 keyword mixtures. Patient and constant adjusting of keywords is very important here.
Start with broad initial analysis at net library, DuckDuckGo, Clusty/Yippy, Wikipedia, and Mahalo. This can provide you with a broad sense of classes, connected topics, and doable directions to aim your analysis.
Narrow and deepen your visible-web search with Google and ask.com. Once you have got experimented with mixtures of 3 to 5 totally different keywords and keyphrases, these search engines can deepen the results pool.
Go beyond a Google deep internet search. Google does not spider invisible sites, thus wait and use slower, a lot of specific search engines like the net Archive (for free media of all sorts and to backward-search past events) and Surfwax (much a lot of knowledge-focused and far less commerce-driven than Google).

Bookmark and Stockpile doable sensible Content
While this step is easy, this can be the second-slowest a part of the process: gathering all the doable ingredients into organized piles to sift through later. Here's a advised routine for bookmarking pages:
CTRL+click (Windows) or Command+click (macOS) the fascinating computer programme result links. This can open a brand new tab page anytime.
When you have 3 or four new tabs, quickly browse them associated do an initial assessment of their credibleness.
Bookmark any tabs you concentrate on credible on 1st look.
Close the tabs.
Repeat with following batch of links.
This technique, when concerning forty five minutes, can yield dozens of bookmarks to sift through.

Filter and Validate the Content
This is the slowest step of all: vetting and filtering. If you're doing arduous net analysis, this can be additionally the foremost vital step, as a result of your resources should face up to shut examination later.

Consider the author, source, and associated date of publication: is that the author and authority with skilled credentials, or somebody WHO is vending their wares and making an attempt to sell a book? Is that the page uneatable or outstandingly old? Will the page have its own name (for example, honda.com or gov.co.uk), or is it some deep, obscure page on a free hosting platform?
Be suspicious of private pages, likewise as business pages with shoddy, inexpert presentations: writing system and descriptive linguistics errors, poor information, tinny advertising, legion popups, absurd fonts, and blinking emoticons are red flags that the author isn't a significant resource and doesn't care concerning quality.
Be suspicious of scientific or medical pages that show scientific or medical advertising: for instance, if researching Dr. Recommendation, be cautious if the Dr. Web content displays blatant advertising for dog drugs or pet food. Advertising will indicate a conflict of interest or hidden agenda behind the writer's content. This is not continuously the case, however it is best to research.
Be suspicious of harangue, overstating, or extreme commentary: Forceful, pointed anger and negativity will indicate dishonesty and fallacious motivations behind the writing. An equivalent goes for excessively positive, flattering coverage. Hunt for balance.
Commercial shopper websites is sensible resources, however be skeptical of comments: simply because seven individuals rave that Pet Food X {is sensible is sweet|is nice} for his or her dogs doesn't essentially mean it's good for each dog. Similarly, if 5 individuals out of 600 complain a few specific traffickers, that does not essentially mean the seller is unhealthy. Be patient, skeptical, associated slow to make an opinion.
Heed your intuition if one thing looks amiss: maybe the author is simply a bit too positive or looks a bit too closed to alternative opinions. Perhaps the author uses vocalization, name-calling, or insults to form a degree. The information of the page may appear childlike and haphazard. Or, you get the sense that the author is making an attempt to sell one thing. If you get any ill-natured feeling that one thing isn't quite right concerning the net page, trust your intuition.
Use the Google link: feature to check the backlinks for a page: this method lists incoming links from major websites that link to the net page of interest. These backlinks facilitate gauge the respect the author has earned round the net. Merely enter link: [web page address] within the search bar.
Decide that Argument You currently Support
A few hours of significant analysis may modification or validate your initial opinion. In any case, you may learn a lot of concerning each side of a problem, associated be equipped to voice an opinion, write a report or thesis, or solidify your feelings on a subject.
If you've got fashioned a brand new opinion, redo your analysis (or re-sift your existing analysis bookmarks) to collate facts that support it.
Quote and Cite the Content
While no single, universal normal for citing (acknowledging) quotes from the net exists, a couple of conventions usually apply.
Online content usually follows the formats arranged call at the AP Stylebook or The Chicago Manual of favor. Cite sources inline, not as footnotes. For instance, "A 2019 study by Some University discovered that..." Whenever doable, offer a link to the first supply of the knowledge.
For written material, the trendy Language Association and yank Psychological Association supply 2 terribly revered citing strategies.



Here may be a sample MLA citation:
Never lift. Directly quote the author, or rewrite and summarize the content (along with acceptable citation). Restating associate author's words as your own is prohibited, and can get you a failing mark on your thesis or paper. Likewise, do not steal proprietary material like photos and graphics. If you want to incorporate such associate item, contact the owner and supply acceptable credit. Or, check inventive Commons for pictures that are alright to use.
Choose a Research-Friendly application program
Researching is repetitive and slow, thus you wish a capable browser. A research-friendly application program offers:
Multiple tab pages that is open at the same time.
Bookmarks or favorites those are quick and straightforward to manage.
Page history that's straightforward to recall.
Fast page loading.
Chrome, Firefox, and Opera are sensible selections.
It's researching, and it ought to feel slow and repetitive as a result of that is the nature of diligence and skeptical, arduous questioning. Keep your perspective positive, and luxuriate in the invention method. you may discard ninetieth of what you browse (although you may notice a number of it entertaining) — however that 100 percent goes a protracted method toward forming associate opinion, case, or mental object that is solidly nonmoving  really.

Tuesday, November 19, 2019

একজন ছোট ভাই যে ফ্রি ল্যান্সার হতে চায় তার সাথে দেখা করা এবং আলোচনা করা।

ফ্রি ল্যান্সার বাংলাদেশ ফেসবুক গ্রুপ একজন মডারেটর হবার কারনে প্রায়শই অনেকের সাথে অনলাইনে কথা হয়। ভালো ও লাগে নতুন নতুন মানুষের সাথে পরিচিত হইতে। আমাদের ময়মনসিংহ সদরের একজন ছোট ভাই এর সাথে আজকে দেখা হলো। অনেকেই আছে দেখা হলে খুব ইনসপায়ার হয়।যদি ও আমি খুব বড় মাপের ফ্রি ল্যান্সার না- তারপরে ও যখন নতুন কেউ আসে বা কারো সাথে পরিচিত হই তখন আমার ভালো লাতে এবং আমি তাকে কিছু ইন্সট্রাকশন দেই যেন সে ভালো মাপের বা বড় মাপের ফ্রি ল্যান্সার হইতে পারে।ছবিতে ক্লিক করলেই আপনি সরাসরি আমাদের গ্রুপ এর পেজে চলে আসবেন। আমাদের গ্রুপের মেম্বার সংখ্যা রিসেন্টলি এক লাখ ছাড়ালো।

 Freelancer Bangladesh facebook Group


তো আজকে এক ছোট ভাই এর সাথে দেখা হলো - সে নতুন ফ্রি ল্যান্সার হবে চেষ্টা করতাছে। তো  তাকে কিছু খাবারের অনুরোধ করলাম। সে কিছূই খাবে না। কোন ভাবেই তাকে কিছু খাওয়ানো যাইতাছে না । শেষে সামনে গরুর দুধের চা পাইলাম তাই তাকে খাওয়ালাম। সে একদম নতুন। এবং আর্থিক অবস্থা তেমন ভালো না। আমি আমার ব্যাক্তিগত কাজে বাসা থেকে বের হয়েছিলাম। তো সেই  ফাকে তার জন্য সময় বের করা এবং কথা বলা। সে ময়মনসিংহ পলিটেকনিক ইনষ্টিটিউটে ১ম বর্ষের ছাত্র। 

যে মোটিভেশন গুলো আমি দেবার চেষ্টা করলাম- তার সার সংক্ষেপ এরকম-

১.  অনলাইনে  কারো কাছ থেকে টাকা দিয়ে কাজ না শিখে প্রথমে নিজে নিজে ইউটিউবের  ভিডিও দেখে দেখে কাজ শিখা। সবকিছুেই দেয়া আছে ইউটিউবে - বাকি গুলো বুদ্ধি করে শিখে নেওয়া।

২. যে কোন ওয়াই ফাই লোকেশন থেকে ইউটিউবের ভিডিও গুলো ডাউনলোড করে নেয়া এবং মোবাইলে অবসর সময়ে বসে বসে দেখা। এর জন্য প্রয়োজনীয় সফটওয়্যার লেখার নীচে দেয়া থাকবে।

৩. বাসাতে টাকার জন্য প্রেশার না দেয়া। খুব বেশী প্রয়োজন হইলে অল্প টাকার মধ্যে ১০-১২ হাজার টাকার মধ্যে একটা সেকেন্ড হ্যান্ড ল্যাপটপ কিনে নেয়া। 

৪. পড়াশোনার ক্ষতি না করে ফ্রি ল্যান্সিং এর জন্য চেষ্টা করে যাওয়া।
৫. আস্তে ধীরে আগানো - বুঝে শুনে আগানো। 
৬. যেখানে আটকে যাবে সেখানে ফ্রি ল্যান্সারদের বড় ভাইদের সাহায্য নেয়া। 

প্রায় ১ ঘন্টা তারা সাথে মোটিভেশনাল কথঅ বলে তাকে ইন্সপায়ার করে তারপরে নিজের কাজের দিকে আগালাম। সে খুব খূশী হইছে দেখলাম। ।ভালো লাগলো আমার ও। 

কাজের জন্য সারাদিন ঘরে বসে থেকে অনেক সময় বোর লাগে। এই ধরনের আরো আড্ডা মে বি আমাকে ও ইন্সপায়ার করবে। তাকে বললাম ২০০৩ সাল থেকে আমি ওডেস্ক এর সাথে জড়িত- আর ২০১১ সাল তেকে আমি প্ররো দমে ফ্রি ল্রান্সার। কিন্তু আমি তেমন কিছু করত েপারি নাই বা জমাতে পারি নাই কারন আমার খরচের স্বভাব। যা পাই তাই খরচ করে ফেলাই। 

আরো বললাম ফ্রি ল্রান্সার তারাই যারা দেশে বসে থেকে নিজের মেধা বুদ্ধি খরচ করে ফরেন থেকে রেমিটেন্স আনে এবং বাংলাদেশ সরকারের উপকারে লাগে - তাদেরকে আমাদের দেশে ফ্রি ল্যান্সার বলা হয়। মানুসেল ঘর বাড়ি থেকে টাকা চাওয়া বা মানুসেল কাছ থেকে জোড়পূর্বক বা বলপূর্বক বা কৌশলে টাকা আদায় করার নাম ফ্রি ল্যান্সিং না। 

তারো কিছু উপদেশ পাইলাম ফ্রি ল্যান্সারদের জন্য- বললো- সারারাত না জাগতে। বললাম আমি সারারাত জাগি না। সকালে ১০-১৫ মিনিট হাটাহাটি করার জন্য । বললাম চেষ্টা করবো। 

Saturday, October 19, 2019

Social Media Optimization: half-dozen Tips to Steal from SEOs



Most marketers area unit accustomed to computer programme optimization (SEO) on some level. Exploitation the reach of search engines like Google or Bing to fuel your promoting campaign has been a undefeated strategy for years. however as social media grows together of the highest platforms to succeed in shoppers, new approaches to digital promoting have emerged. One in every of the highest methods employed by businesses trying to maximize their reach on-line is Social Media optimization (SMO).

What Is Social Media Optimization?
Social Media optimization is actually exploitation social media as a catalyst to grow your company’s on-line presence. wherever some corporations tend to only originated a profile on Instagram, Facebook or Twitter to be wherever their customers area unit, SMO is regarding strategically making, building and maximizing your social media commit to connect along with your audience. SMO permits you to:

Strengthen your whole.
Generate leads.
Get a lot of visibility on-line.
Connect along with your audience.

Why SMO is very important
The lines between social media promoting and computer programme promoting have become more and more blurred. Within the past, the 2 were checked out as separate and distinct aspects of promoting. However the truth is that they’re a lot of tangled than you would possibly suppose.

While obtaining one,000 Tweets on a commentary won’t as if by magic boost your rankings on Google, social media promoting and SEO area unit each stronger along. One survey found five hundredth of corporations that aren’t succeeding with SEO aren’t group action social media promoting.



Aside from that, the advantages of social media promoting are well documented. If you wish a solid overall approach to on-line promoting, you wish a healthy balance of SEO and SMO.

While they’re not precisely the same, there area unit loads of lessons social media marketers will learn from SEOs to higher optimize for social media. Here area unit six tips you'll steal from SEOs to enhance your social media optimization:

1. Optimize Your Strategy
A lack of social media strategy has been a roadblock for corporations for a short while currently. Partially as a result of it’s still fairly new, and additionally as a result of social media is often dynamical. Twenty-eight % of brands feel that a scarcity of strategy is that the high barrier keeping them from turning into a social business. So as to optimize your social media promoting campaigns, you've got to possess a technique with clearly outlined goals and objectives.

A social media optimization strategy ought to target growing your presence and achieving measurable results. This post outlines a way to setup your strategy in seven steps:

Ensure Your Social Goals Solve Challenges.
Extend Efforts Throughout Your Organization.
Focus on Networks That Add worth.
Create participating Content.
Identify Business Opportunities Through Social.
Engage rather than Ignore.
Track, Improve and Market Your Efforts.

When you have a documented strategy in situ, youo live wherever you stand and build enhancements where necessary. We’ll bit on it topic a lot of toward the tip of this post.


2. Do Keyword analysis
One of the core competencies for SEOs is that the ability to try and do keyword analysis. Keyword analysis is all regarding characteristic the phrases and topics your audience is finding out, therefore you'll produce relevant content for them. an equivalent factor applies for social media optimization.

You need to grasp what topics, hashtags and keywords your audience uses therefore you'll share content that’s relevant to their interests. Keyword analysis also will assist you learn that hashtags and phrases to use in your thereforecial media posts so you've got a better likelihood of being found once folks hunt for content relevant to your whole.

Here’s example. Let’s say you’re a vegetarian wear whole in Chicago. Folks Tweeting regarding tasty vegetarian restaurants in Chicago or looking out the hashtag #vegansofchicago on Instagram area unit quite possible an area of your audience. Therefore naturally, you wish to form positive your social media posts show up for those varieties of searches. however however does one recognize that keywords area unit reaching to be the foremost necessary to your brand?

SEOs use a spread of tools to search out out however usually bound keywords and phrases area unit searched (search volume). However those numbers don’t essentially correlate to social media use. so as to induce a thought of however usually a keyword is employed on social, you'll use our Twitter keyword report.



Most brands use this report back to track trends in their branded keywords and hashtags. However you'll additionally use it to try and do a touch social media keyword research!

Start by springing up with a listing of keywords your audience may use. Then, move into the Twitter Keyword report and add your keywords.



Now, you’ll be able to see the keyword volume of all of your target phrases over time. Listen to the phrases with the very best volume, then begin adding them into your social media posts.

3. Optimize Your Profiles
For SEO, optimizing your web site is crucial. The content on each page helps search engines perceive what your web site is regarding. Therefore once folks area unit finding out topics relevant to your web site, search engines recognize to suggest your content. Social media optimization is incredibly similar. However rather than optimizing your web site, you wish to optimize your profile.

Creating your profile feels like a fairly sure bet, however it’s one in every of the primary areas of SMO wherever businesses disappoint. consider your company’s profile page as your foundation. If it’s weak, it’s exhausting to create something on high of it. Here’s what it takes to create a powerful foundation.



Profile pic: Your profile photo ought to be your company emblem. Ou'll use a head shot of yourself if you’re a freelancer, authority or temperament.

Username:  Social media username availableness is getting down to become a giant issue for brands once they’re selecting a business name. Exploitation your name makes it easier for purchasers to search out you once they’re finding out your profiles on social. you'll use a tool like Knowem to envision if your company’s name is on the market on totally different social media channels.

Bio: Clearly state what your company will. If doable, place a traceable link back to your web site inside your bio to drive a lot of traffic. exploitation relevant keywords in your bio also will offer your page a lot of visibility in search.

Most significantly, fill out your profile fully. Sites like Facebook and LinkedIn allow you to enter loads of data regarding your company. sadly several businesses leave these fields incomplete as a result of they rush through the method. however the a lot of complete your profile is, the a lot of your page can stand out.

Pro Tip: Dedicate a block of your time for finishing your thereforecial media profiles 100% so you'll provides it the eye it deserves.

4. Optimize Your Content
You’ve most likely detected the old saying, “Content Is King” once it involves SEO. Well an equivalent factor is true once we’re talking regarding SMO. Content drives social media. You can’t succeed with social media promoting while not sharing quality content.

There area unit 2 varieties of content that you just will publish on social media:

Original content
Curated content
Ideally, your strategy ought to have a combination of each.

Original content is content that’s specifically created for social media, and is typically a part of a campaign. as an example, once Netflix launched its #NetflixCheating campaign, they created original graphics to share on Twitter.



Curated content is content that’s shared from numerous sources round the internet. Content curation is quite simply tweeting out links. so as to optimize it for the most effective results, you must solely share content that’s valuable and relevant to your audience. Quality continually beats out amount. verify what content your audience finds the foremost relevant by measure the engagement for every post.

Guy Kawasaki is one in every of the highest Twitter users/experts within the world, and his Tweets mostly encompass curated content.

You can use Sprout Social’s sent messages report back to see specifically that content of yours gets the foremost engagement across all of your channels. Once you’ve known them, you'll begin sharing similar content.



When you’re business to social media, here area unit some tips to stay in mind:

Test Headlines
When you transfer a Tweet or Facebook post, don’t simply use an equivalent headline anytime. Some headlines can work higher than others. Plus, employing a style of headlines makes your feed recent. Your followers most likely don’t wish to ascertain an equivalent precise Tweet or Facebook post from you 5 times in an exceedingly row.

Here’s example of 2 Tweets promoting an equivalent article. Notice however they every have totally different copy.


Use Images
A study from B2B promoting Mentor found pictures were the foremost necessary maneuver for optimizing content for social media.





Include top quality pictures in your social media updates whenever doable. You'll use our terribly own image resizing tool, Landscape, for gratis to form positive all of your pictures area unit sized properly for every social media web site. There’s nothing worse than having a bunch of pixelated extended pictures in your Twitter feed.

Pro tip: embrace a featured image altogether of your own web log posts. Whenever folks share your content on social media, the image can mechanically be enclosed. Look into this post on a way to use Twitter cards for a lot of data.

#Hashtags

Hashtags became synonymous  with social media promoting. Instagram, Twitter, Facebook and just about all different high social media sites integrate hashtags in some fashion. They create it simple to trace trending topics, categories social media posts and that they will be fun.

Hashtags facilitate with social media optimization by giving your posts a lot of reach, and creating it easier for your content to be found even by folks that aren’t following you.

Even though hashtags will appear reasonably random, there’s strategy concerned in obtaining the foremost out of them. Here area unit some tips to use hashtags effectively on social media:

Look at what hashtags influencers in your trade area unit exploitation. Use these tools to assist.

Search for trending hashtags, and see if you'll relate them back to your trade or whole.

Create your own hashtags to trace specific social media promoting campaigns. simply avoid fails like these.

Post Length Matters
Twitter provides you up to 280 characters per Tweet, however that doesn’t mean you've got to use all. Knowing the best standing update length will increase the probability of individuals participating along with your content. We have a tendency to truly created a whole post with the best length of each social media post.



5. Optimize Your Posting Schedule
The time you post is simply as necessary as what you post. What’s the purpose in sharing an incredible pic on Instagram if no one sees it? Here area unit some tips to optimize your social media posting schedule.


Best Time to Post on Social Media
The optimum posting time depends on your audience and also the social media web site you’re exploitation. Luckily, tools like Sprout Social area unit able to build this method loads easier by hard the most effective time to post on your social media accounts for the very best engagement. we have a tendency to additionally did some analysis into the most effective times to post on social media, which is able to give you an honest start line.



How usually to Post on Social Media
The second a part of temporal arrangement your social media posts is selecting the proper frequency. you wish as many folks to ascertain your posts as doable, however you don’t wish to fully bombard your followers’ streams and timelines. Here’s a breakdown of the optimum social media posting frequency for various social networks in step with analysis from Constant Contact:

Facebook: 3-10 times per week
Twitter: 5+ times per day
LinkedIn: 2-5 times per week
Pinterest: 5-10 times per day
Stay organized by creating a social media editorial calendar for your business.

6. Track & Improve With Social Media Analytics
Just like with SEO, you must track your SMO efforts with social media analytics. a number of this will be done through Google Analytics exploitation UTM codes. UTM codes and shortened URL’s enable you to attribute the traffic your web site gets from social media to a particular channel or campaign. additionally to it information, use the reports you get from your social media promoting tool to induce a full image of the impact of your campaigns.



Aside from chase traffic, tie in social media specific metrics too. A good place to begin is Avinash Kaushik’s four social media metrics. Kaushik’s metrics area unit smart as a result of they’re simple and target the key facet of of social media—engagement. They answer the question: Do folks like what you’re sharing?

Conversation Rate: the typical variety of comments and replies your posts get
Amplification: the typical variety of shares and retweets your posts get
Applause: the typical variety of “votes” your posts get (+1, favorites, likes)
Economic Value: You social media ROI

Social Media optimization will drastically improve the means you approach promoting on Facebook, Twitter, Instagram and different social media sites. begin taking a strategic approach to social media promoting and amplify your results.

Marketplace English Tutorial. Freelancing.Outsourcing.

ফ্রিল্যান্সার/মার্কেটপ্লেস/আউটসোর্সিং জগতে পজিটিভ থাম্ব বলতে কি বোঝেন?

ইন্টারনেটে এখন অনেক খানে পজিটিভ থাম্বের ব্যবহার আছে। যে কোন পোষ্টের নীচে অনেক সময় থাম্ব ব্যাপারটা দেখা যায়। আবার অনেকখানে অনেক ওয়েবসাইটে আছে...