Translate

Saturday, April 24, 2021

ইউটিউব সাবস্ক্রাইভার নিয়ে ২/১টি কথা।

ধরেন, আপনার একটি ইউটিউব চ্যানেল আছে। সেখানে আপনি প্রতিনিয়ত কোয়ালিটি ভিডিও আপলোড করতাছেন। ইউটিউব আপনার ভিডিও কোয়ালিটি তে খুশী। ভিডিও তে আপনি এসইও টাইটেল এবং ডেসক্রিপশন করেছেন এবং ভিডিও এর সকল কন্ডিশনও ফিল আপ করেছেন। ডেসক্রিপশনে ২/১ টি চ্যানেল মেনশনও করে দিলেন। এখন ইউটিউব যখন আপনার ভিডিওটি টি তাদের সার্চ রেজাল্টে দেখাবে সেখানে আপনার সাবস্ক্রাইভার আসা শুরু হবে আপনার ভিডিও দেখে যদি তাদের ভালো লাগে তাহলে। ইউটিউব যতোগুলো পদ্বতিতে সাবস্ক্রাইভার এড করাকে পছন্দ করে তার মধ্যে সবচেয়ে প্রিয় এই পদ্বতিটি। এইটা তাদের রিকমেনডশন। আপনি ইউটিউব Studio প্রোগ্রামে গেলে দেখতে পারবেন যে: কোন ভিডিও থেকে আপনার কতো সাবস্ক্রাইবার আছে: এইটাকে বলা হয় ইন্টারেষ্ট বেজড সাবস্ক্রাইভার। এই ধরনের সাবস্ক্রাইভার গুলো আপনার ফিউচার টাইম Video গুলো দেখবে। কিন্তু যে সাবস্ক্রাইভার গুলো আপনি এক্সচেন্জ করে আনতাছেন বা সোশাল মিডিয়া প্যানেল থেকে কিনতাছেন বা সোশাল মিডিয়া এক্এসচন্জ থেকে নিতাছেন তারা কখনো আপনার ভিডিও দেখবে না কারন তাদের এতো সময় নাই। আর তারা তাদের আগ্রহের উপর ভিত্তি করে আপনার চ্যানেলে সাবস্ক্রাইভ করে নাই। সে বড়জোর নোটিফিকেশণ পাবে আপানর ভিডিও আপলোডের আর নয়তো শেয়ার করে দিতে পারে বা ইনটেনশনালি আপনার ভিীডও টি ১/২ মিনিট দেখে দিতে পারে। 






প্রতি মূহুর্তে নতুন নতুন চ্যানেল আপডেট হইতাছে : নতুন নতুন ছ্যানেল ডিলেটও  হইতাছে স্পামিং এর কারনে। আপনি যদি গনহারে ইউটিউব ভিডিও লিংক সোশাল মিডিয়া তে দিতে থাকেন তাহলে আপনার ভিডিওটি স্পামিং আকারে ধরা পড়বে এবং ভিীডও সমেত আপনার চ্যানেলটি ডিলেট হয়ে যাইতে পারে। আপনি কারো পোষ্টিং এর কখনো কমেন্ট করে ভিডিও লিংক দিবেন না। আপনি কখনো ভিপিএন ব্যবহার করে ইউটিউব ওপেন করবেন না। এতে ইউটিউব আপনাকে নিষিদ্ব করে দিতে পারে। কোন দেশে যখন ইউটিউব বন্ধ থাকে তখন সেই দেশে ইউটিউব ভিপিএন ব্যভহার করে ওপেন করা যায় বা যাবে। কিন্তু এখন ইউটিউব লিগ্যালি ওপেন আছে। এখন যদি আপনি সবসময় ভিপিএন দ্বারা ইউটিউব ব্যবহার করেন তাহলে সেটা আপনার বা দেশের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। [শুনেছি একসাথে যদি কোথাও অনেক ভিপিএন ওপেন থাকে তাহরে হ্যাকার রা সেখানে আক্রমনের চান্স পায়: এইটার কোন প্রমান নাই শুধূ শোনা বা আমার পারসোনাল সন্দেহ] ।






উপরের ছবিটি দেখলে বুঝতে পারবেন যে: আমার চ্যানেলে প্রতি মূহুর্তে   যে ভিউজ আসে তা এসইও থেকে আসে। কিওয়ার্ড এসইও বা এপিআই বা আরো যে কোন ধরনরে এসইও। আমার ১৬ মাসে ঘন্টা এসছে ৯০০০+ কিন্তু সব ভিউজ ই আসে যারা সাবস্ক্রাইভ করে না তাদের কাছ থেকে। সো এই থেকে বোঝা যায় যে: সাবস্ক্রাইভার বাড়াতে পারলেই ভিউজ আসবে না পারমানেন্ট। এইটা আপনি কখনো একুরেট রাখতে পারবেন না যে : কতো সাবস্ক্রাইভ কোথা থেকে আসবে আর কতো সাবস্ক্রাইভার আপনার ভিীডও ভিউজ দেখবে। তবে হ্যা যাদের ভিউজ আসে সাবস্ক্রাইভার থেকে তারা সফল। আর যাদের ভিউজ আসে খ্যাটাগরি বেজড এ তারা হইতাছে আরো সফল। যেমন: আমার চ্যানেল হইতাছে পিপলস ও ব্লগ ক্যাটাগরিতে। কিন্তু আমার বিউজ যদি আসে হাউ টু ক্যাটাগরি থেকে তাহলে এইটা সফলতা হিসাবে ধরা হবে না। আমার চ্যানেল যে ক্যাটাগরি তে সেই ক্যাটাগরি থেকে ভিউজ আসরেই আমার চ্যানেলেল গ্রোথ বাড়বে।  কারন সম মন মানসিকতা সম্পন্ন ভিউজ হলে সেগুলো লাইক হবে, শেয়ার হবে আবার ইউটিউব নিজে এসইও করে দেখালে সেখানে আপনি ভিউজ পাবেন, ওয়াচটাইম পাবেন এবং সাবস্ক্রাইভার পাবেন এবং ভবিষ্যতের জন্য ভিউজ ও পাবেন গ্যারান্টেড। তাই চেষ্টা করতে হবে ইনটেনশনালি সাবস্ক্রাইভার গ্রোথ না করে প্রতি ভিডিও থেকে যেনো অটোমেটিক সাবস্ক্রাইভার আসে সেটা দেখা। 






No comments:

Post a Comment

Thanks for your comment. After review it will be publish on our website.

#masudbcl

Marketplace English Tutorial. Freelancing.Outsourcing.

#shorts about bad link remove from search engines or from search engine ...

#searchengines #searchenginesresultpages #badlinkremoval #badlinks #badresults