Translate

Monday, November 16, 2020

পাইওনিয়ার থেকে লোকাল ব্যাংকে পেমেন্ট উইথড্র করা এবং রিসিভ করা।

                             



পাইওনিয়ারে আপনি ০৩ ভাবে পেমেন্ট রিসিভ করতে পারবেন। ডলার বা ইউরো তে বা পাউন্ডে। ‍যে কোন একভাবে পাইওনিয়ারে ডলার/ইউরো/পাউন্ড রিসিভ করার পরে আপনি সেটা আপনার নামে বরাদ্দকৃত যে কোন ব্যাংক একাউন্টে উইথড্র করে নিতে পারবেন।  আপনি চাইলে পাইওনিয়ার সাথে একসাথে ৫টি ব্যাংক একাউন্ট এড করে নিতে পারবেন। বিশ্বের যে কোন দেশে থাকা আপনার নামে বরাদ্দকৃত যে কোন ব্যাংক একাউন্ট যা অনলাইন/বিএফটিএন পেমেন্ট রিসিভ করতে স্বক্ষম সেরকম ব্যাংক একাউন্টস এড করতে পারবেন এবং আপনার যে দেশের ব্যাংক একাউন্টে তুলে নিতে ইচ্ছা করবে আপনি সে দেশেই উইথড্র করে নিতে পারবেন। আপনি যদি বাংলাদেশের ব্যাংক একাউন্টে উইথড্র করেন তাহলে বাংলাদেশ সরকার রেমিটেন্স পাবে। আর যদি আপনি অন্য দেশের ব্যাংকে উইথড্র করেন তাহলে অণ্য দেশের সরকার রেমিটেন্স পাবে। আপনার যদি পাইওনিয়ার একাউন্ট থাকে তাহলে আপনি আপনার পাইওনিয়ার একাউন্টের সাথে ব্যাংক একাউন্ট এড করে নিতে পারেন। উপরে ডান দিকে দেখবেন: ব্যাংক একাউন্টস অপশন পাবেন। সেখানে ক্লিক করলে একটা ফর্ম পাবেন -সেই ফর্ম টা ভালো ভাবে পুরন করলেই পাইওনিয়ার একাউন্টের সাথে আপনার ব্যাংক একাউন্ট এড হয়ে যাবে। যেখানে ডলার থাকা স্বাপেক্ষে আপনার যখেন মনে চায় যেদেশে মনে চায় সেদেশে বসে ডলার উইথড্র করতে পারবেন। 

                       



আপনার কাছে ডলার থাকা স্বাপেক্ষে আপনি যখন উইথড্র দিবেন তখণ পাইওনিয়ার আপনার কাছে জানতে চাইবে যে: আপনি কোন ব্যাংকে উইথড্র করবেন। সেটা সিলেক্ট করে দেবার পরে পাইওনিয়ার সেটা প্রসেসিং এ নেবে এবং সর্ব্বোচ্চ ২/৩/৪/৫ বিজনেস ডে এর মধ্যে আপনার ব্যাংক একাউন্টে এস এড হবে যাকে বাংলাদেশ সরকার বলে বিএফিটিএন। নীচে একটা বিএফটিএন এর উদাহরন দেখানো হলো।






আপনি পাইওনিয়ারের সাথে যতোগুলো ব্যাংক একাউন্ট এড করবেন সবগুলো নীচে একটা অপশনে দেখাবে। ব্যাংক একাউন্টস ফর উইথড্রল সেকসানে দেখাবে। সেখানে আপনার মনমতো আপনি আপনার ব্যাংক একাউন্ট গুলোতে লেনাদেনা করতে পারবেন।





নীচের ছবিতে দেখতে পারবেন আমার ২ টা ব্যাংক একাউন্ট এড করা আছে। সেখানে ব্যাংক গুলো থেকে  আমি একা সিলেক্ট করি তাহলে সেটা সেই সিলেক্টেড একাউন্টে উইথড্র করা যাবে। আমি আজকে আমার ইষ্টার্ন ব্যাংকে একটি পেমেন্ট রিসিভ করেছি বিএফটিএন - যা এইথােনের লিস্ট থেকে আমি ইষ্টার্ন ব্যাংক সিলেক্ট করে দিয়েছি প্রথমে- উইথড্র করার সময়ে। 







আবারো ক্রনোলজিক্যালি ডিটিইলস টা দেয়া হলো নীচের ছবির মাধ্যমে। আপনি চাইলে ইমেজ সেভ করে দেখতে পারেন। এসইও করার সুবিধার্থে আমি প্রত্যেকটা ইমেইজই অলটার ইমেজ করে রাখি বা হাইপারলিংক করে রাখি। 







আপনি ব্যাংকে উইথড্র দেবার পরে আপনার পাইওনিয়ার উইথড্রল সেকসান দেখাবে। ব্যাংকে এড হবার আগে পর্যন্ত সেটা পেন্ডিং দেখাবে। ব্যাংকে এড হয়ে যাবার পরে সেটা কমপ্লিটেড দেখাবে। কমপ্লিটেড হবার ২৪/৪৮/৭২ ঘন্টা পরে সেটা আপনার ব্যাংকে এড হবে। 






নীচের ছবিতে দেখলে বুঝতে পারবেন যে: আমি যেদিন উইথড্র দিছি সেদিনের রেটেই আমি ডলার এর সমপরিমান টাকা রিসিভ করেছি। 





পাইওনিয়ারে পেমেন্ট রিসিভ করার সবচেয়ে বড় শান্তি হলো: পাইওনিয়ার ফ্রি ল্যান্সার দের ব্যাংক। নরমাল ব্যাংকে তো অনেকেই সুইফট সেন্ড করে যেমন: এক্সপোর্ট- ইমপোর্ট, গার্মেন্টস, প্রবাসী, বৈদিশিক শ্রমিক- এরা সকলেই সুইফট ট্রানজেকশন সুবিধা ব্যবহার করে। বিশ্বের সমস্ত ফ্রি ল্যান্সার রা পাইওনিয়ার ব্যবহার করে। শুনলে বিশ্বাস করবেন কিনা জানি না: আমি ২০০৬ সাল থেকে প্রায় ১৫ বার পাইওনিয়ার কার্ড রিকুয়েস্ট করেছি- পাইওনিয়ার থেকে কার্ড ইস্যু করেছে ১৫ বার- শিপমেন্ট ও করেছে ১৫ বার (প্রতিবার পাইওনিয়ারের ৪৫ ডলার লস) - বাংলাদেশ বিমানবন্দর, ঢাকা জিপিও, ময়মনসিংহ জিপিও এবং স্থাণীয় পোষ্ট অফিস ( আণফরচুনেটলি আমার লোকাল পোষ্ট অফিস খুব খাপসা একটা এলাকা বা কোয়ার্টারের ভেতরে- সেখানে কয়েকবছল আগে একটা নাটকের শ্যুটিং করতে দেখে অবাকও হয়েছি) - পাই নাই। ২০১৮ সারে পুনরায় রিক্যুয়েস্ট কলরাম পাইওণিয়ারের কাছে - সব শুনে জেনে পাইওণিয়ার জার্মানী ডিএইচএল এ কার্ড সেন্ড করলো- বাসাতে রিসিভ করলাম এবং একাউন্ট ও একটিভেট করলাম। [আমি অনেকবার কার্ড  রিক্যুয়েস্ট করেও কার্ড পা্ই নাই বিধায় আমার জন্য অনেক কিছুই লিগ্যাল] মাঝে পাইওনিয়ারের কার্ড কোম্পানী পরিবর্তন হয়েছে : ওয়ান কার্ড থেকে আয়ারল্যান্ডের বিউন্ডে কিনে নিয়েছে। তারা বলেছে এখন থেকে আর কার্ড একাউন্ট থেকে ডলার উইথড্র দিতে কার্ড একটিভ থাকা লাগবে না। আমার কার্ড ইনএকটিভ কিন্তু আমার পাইওনিয়ার কার্ড একাউন্ট একটিভ। বিউন্ডে নতুন নিয়মটা করেছে সুন্দর। তাছাড়া পাইওনিয়ার ব্যাংক একাউন্ট ও আছে একটিভ যেখান থেকে ডলার রিসিভ করলে পার ট্রানজেকশন ১৫ ডলার পেমেন্ট দিতে হয় একস্ট্রা। সেটা একটিভ আছে। তো আশা করি আমার অভিজ্ঞতা আপনার কাজে লাগবে অনেক। আরো যে কোন সমস্যা হলে দয়া করে জানাতে দ্বিধাবোধ করবেন না। 
 




No comments:

Post a Comment

Thanks for your comment. After review it will be publish on our website.

#masudbcl

Marketplace English Tutorial. Freelancing.Outsourcing.

ফ্রি ল্যান্সার দের একটি আইডি কার্ড কখন দরকার ছিলো?

আগামীকাল থেকে বাংলাদেশ সরকারের প্রযুক্তি মন্ত্রনালয় দেশের শীর্ষস্থাণীয় ফ্রি ল্যান্সারদের কে ভার্চুয়াল আইডি কার্ড দেবার কথা ঘোষনা করেছে। অনলা...