Translate

Wednesday, September 30, 2020

masudbcl.com ডোমেইন ফেরত পাওয়া। ডোমেইন অকশন।


পারস্পরিক সম্মতির উপরে ভিত্তি করে বায়ার এবং সেলারের মাঝখানে  পূর্বে কনো ডোমেইন নিয়ে যে সমঝোতা বা দর কষাকষি তাকে ডোমেইন অকশন বলা হয়। অনেকেই অনকে সময় অনকে কারনে ডোমেইন কিনে থাকে কিন্তু ব্যবহার করে থাকে না। ডোমেইন পার্ক করার জন্য ও অনেকে অনেক সময় ডোমেইন কিনে রাখে। কিন্তু সময় মতো সেটাকে কাজে লাগাতে পারে না। তখন সে ডোমেইনগুঅোকে অকশনে কাজে লাগানো যায়। মাঝে মাঝে আশাতীত দামও পাওয়া যায়। ডোমেইন অকশনকে এই কারনে অনেকেই পারফেক্ট মার্কেটপ্লেস মনে করে পারফেক্ট ডোমেইন নেম পাবার জন্য। আপনি যদি পারসোনাল কোন কারনে বা ব্যবসায়িক কোন কারনে একটি ওয়েবসাইট মেক করে থাকেন আর সেখানে আপনি আপনার মতো ডোমেইন কিনে থাকেন তাহলে সেটা ল্যাংক এ আসতে সময় লাগতে পারে। হোয়াইট হ্যাট এসইও এর খুব দরকারি একটা ব্যাপারের নাম হইতাছে ডোমেইন র‌্যাংক। আপানর ডোমেইন টা যদি  কি ওয়ার্ড বেজড এ ডোমেইন হয় সে ক্ষেত্রে আপনার ডোমেইন টা পপুলার হবার সম্ভাবনা থাকে বেশী। আর যদি পপুলার কি ওয়ার্ডের উপর ভিত্তি করে না হয় তাহলে সে ডোমেইনটাকে র‌্যাংক পাওয়ানোর জন্য আপনাকে মোটামুটি ভালো মানের  এসইও কাজ করতে হবে।সে জন্য আগে থেকে র‌্যাংক করা বা আগে থেকে পুপলার বা টপ লেভেল ডোমেইন পাবার জণ্য ডোমেইন সেলার ওয়েভসাইট গুলো অকশনের সুযোগ দেয় যেগুলো আপনি কিনে আপনার ওয়েবসাইটের সাথে ব্যবহার করলে অনেক সময় ভালো মানের ভিজিটর পাওয়া যায়। আপনার যদি অনেকগুলো ডোমেইন থাকে আর আপনি যদি সেগুলোকে র‌্যাংক করানোর চেষ্টা করতে থাকেন তাহলে আপনার ডোমেইনের ভ্যালু ডে বাই ডে বাড়তে থাকবে। আপনি যদি চান একসময় আপনি সেগুলোকে অকশন সাটের মাধ্যমে সেল ও করে দিতে পারবেন। আপনি যদি ইবে এর সাথে পরিচিত হয়ে থাকেন তাহলে আপনি বিড বা অকশন এর ব্যাপারে অলরেডী জেনে থাকবেন। জনপ্রিয় প্রোডাক্ট বিডিও ওয়েবসাইট  ইবে এর সাথে আপনি যদি পপুলার হয়ে থাকেন তাহলে আপনি যে কোন ডোমেইন বিডিং সেকসানে অনকে খুটি নাটি জেনে থাকবেন। অনকে ডোমেইন সেলার অকশন সাইট আছে যেখানে আপনি বিড প্রাইজ রিজার্ভ করে রাখতে পারবেন। আপনি একটি নির্দিষ্ট এমাউন্ট ফিক্সডও করে রাখতে পারবনে। আবার একটা নির্দিষ্ট সময়ের মদ্যে যদি আপনি আপনার সাইট টা সেল না করেত পারেন িফক্সড প্রাইজে তাহলে আপনি আবারো সেই ডোমেইন এর জণ্য বিডিং প্রাইজ বা অকশন প্রাইজ টা ইনক্রিজও করতে পারবেন। সবসময় লেটেষ্ট ডোমেইন অকশন সাইট টাকে পাবার জন্য আপনি আপনার ব্রাউজারে গগুল ডট কম লিখে সার্চ দেন এবং Domain Auction লিখে সার্চ দেন। 

GoDaddy Domain Auction

Namecheap Domain Auction

Expired Domain Auction


নেইমচিপ ডোমেইন অকশন ডিটেইলস

পৃথিবী বিখ্যাত ডোমেইন সেলার কোম্পানী নেমচিপেরও ডোমেইন সেলার মার্কেটপ্লেস অপশন আছে। আবার আছে টপ লেভেল ডোমেইন সেকসানও ।   হোয়াইট হ্যাট এসইওতে একটা ফাংশণ আছে নাম: ডোমেইন এসইও। শুধু ডোমেইন লিংকটাকে লিংক বিল্ডিং করার জন্য ডোমেইন এসইও করা যায়। আপানর ডোমেইনরে নামে যদি অসংখ্য ব্যাক লিংক থাকে তাহলে আপনার ডোমেইন টা সার্চ ইন্জিন অপটিমাইজেশনের টেকনিক অনুযায়ী র‌্যাংক এ নিয়ে আসা যাবে। 


একটা ডোমেইনরে ৩ টা অংশ থাকবে। আমরা আমাদের কথা বার্তার সুবিধার্থে সারা বিশ্বে ডোমেইন নেমগুলোকে শর্ট নেম হিসাবে ডেকে থাকি। যেমন: masudbcl.com কিন্তু আপনি যখন ডোমেইন টা লিখতে যাবেন তখন সে অটোমেটিক্যালি একটা ফরম্যাট ধরবে যেটাকে আমরা https:// or http:// or www. এরকম আসবে। আর সবার শেষে আসবে .com/.net/.org/.edu/.gov. তাহলে একটা ডোমেইনের ৩ টা অপশন পাওয়া গেলো: 

Protocol+Keyword+Extensions


৩টা অংশ যদি না থাকে তাহলে ডোমেইন তৈরী হবে না। আবার একটা ডোমেইন থেকে অনেক অনেক সাব ডোমেইন তৈরী করা যায়। সাব ডোমেইন গুলো কে কয়েকভাবে প্রকাশ করা যায়। পপুলার ২ টা উপায় হইতাছে: 

http://masudbcl.blogspot.com  (Method: একটা ডট বেশী)
https://www.masudbcl.xyz/p/payment-proof.html (Method: Slash[/])


আমার েডোমেইনটা আমি সুদীর্ঘ ৯ বছর  চেষ্টা করে পেয়েছি। তবে মনে ঞয় ডোমেইনটা অকশনে ছিলো না। কারন অকশেন থাকলে আমি খালি পাওয়া মাত্র ডোমেইনটা কিনতে পারতাম না। আবার যদি অকশনে থাকে সেটাও কোন প্রমান আমার কাছে নাই কারন অকশনে থাকা লিষ্টি গুলেঅ কখনো আমার চোখে পড়ে নাই।  

এইভাবে আপনি অসংখ্য সাব ডোমেইন বানাতে পারবেন। আপনার যতোগুলো মনে চায় ততোগুলো সাব ডোমেইন তৈরী করতে পারবেন একটা ডোমেইন নিয়ে। আপনি যদি মনে করেন আপনার ১০০ জন গ্রুপ মেম্বার আছে আর আপনি প্রত্যেখকে একটা করে সাব ডোমেইন দিতে চান তাহলে আপনি স্লেস বা ডট মেথডে ১০০ জনকেই একটা ডোমেইন থেকে ১০০ সাব ডোমেইন তৈরী করে দিতে পারবেন। এই মেথডে কাজ করে তাকে ব্লগার বা ব্লগস্পট ডট কম। যারা ব্লগার দিয়ে ব্লগকে মিনটাইজেশন করে ডলার উপার্জন করতে চান তাদের জন্য আমার একটা ফ্রি ইউটিউব  ভিডিও টিউটোরিয়াল আছে। 







আপনি একটি জিমেইল এড্রস দিয়ে একটি ব্লগ বানানোর পরে আরো ৯৯ টা ব্লগ বানাতে পারবেন। এইভাবে আপনি একটি ব্লগার কম্যুনিটি তৈরী করতে পারবেন। ব্লগার+জিমেইল+এডসেন্স মনিটাইজেশন এই ৩ টা ই গগুল ইনকরপোরেশনের প্রোডাক্ট এবং এখন পর্যন্ত ফ্রি। ব্লগার ডট কমের সাথে হোষ্টিং টা আনলিমিটেড এবং ফ্রি দিয়ে থাকে ব্লগার ডট কম। আপনিও চাইলে সাব ডোমেইন বেজড এ একটা ব্লগ ওপেন করে তার সাথে নিয়মিত কন্টেন্ট লিখে তাকে মনিটােইজেশন করে উপার্জন শুরু করতে পারবেন যা আপনার দেশের জন্য রেমিটেন্স নিয়ে আসতে সাহায্য করবে। 

নীচে একটা এসইও ফ্যাক্টর দেখানো হলো। একটা ওয়েবসাইটের অনেকগুলো ডোমেইন ফ্যাক্টর । বেসিকালি ডোমেইন অথোরিটি নামের একটা বিষয় আছে যেটাকে DA- Domain Authority  নামে প্রকাশ করা হয়। আমি ৩ টা ছবি এড করেছি যেখানে ৩ টা ওয়েবসাইটের DA- Domain Authority দেখানো হবে। প্রথমটা একদম নতুন ডোমেইন ২ দিন হয়েছে। দ্বিতীয়টা নিয়ে আমি তেমন কোনো  এসইও করি নাই তাও দেখাইতাছে ৭ এবং তৃতীয় টা ব্লগার সাব ডোমেইন বেজড। সাব ডোমেইনের সাধারনত DA- Domain Authority হয় না তেমন। DA- Domain Authority মানে এই না যে আপনি ডোমেইনের মালিক। DA- Domain Authority একটা হোয়াইট হ্যাট এসইও র‌্যাংক বা ফ্যাক্টর যার উপরে বেসিস করে অনকে ধরনরে এসইও করা যায়। আপনি একটা কথা মনে রাখবেন- যারা ইন্টারনেটে বস তারা আপনার চেয়ে অনেক বেশী চালাক। আপনি যদি মনে করে থাকেন এসইও সফটওয়্যার দ্বারা  আপনি অনেক ধরনের বাজিমাত করে ফেলািইবেন তাহলে মনে রাখবেন যে- এসইও সফটওয়্যার বা র‌্যাংক নির্ধারন কারী সফটওয়্যার গুলো যখন কাজ করে তখন কিন্তু তারা কি বোর্ড ব্যবহার করে না- ব্যবহার করে র‌্যাংকিং ফ্যাক্টর নির্ধারন করে না। ফলে একটা গ্যাপ থেকে গেলো। ফরে ধেখা যাইতাছে যে- গুগল এর সার্চ িইন্জিনের ১ নম্বর অবস্থানে থেকেও আপনি আশানুরুপ ব্যবসা করতে পারতাছে না্ ১ নম্বরে তাকাটা বড় ফ্যাক্টর না- বড় ফ্যাক্টর হইতাছে ব্যবসা করে যাওয়া। 







No comments:

Post a Comment

Thanks for your comment. After review it will be publish on our website.

#masudbcl

Marketplace English Tutorial. Freelancing.Outsourcing.

ফ্রিল্যান্সার/মার্কেটপ্লেস/আউটসোর্সিং জগতে পজিটিভ থাম্ব বলতে কি বোঝেন?

ইন্টারনেটে এখন অনেক খানে পজিটিভ থাম্বের ব্যবহার আছে। যে কোন পোষ্টের নীচে অনেক সময় থাম্ব ব্যাপারটা দেখা যায়। আবার অনেকখানে অনেক ওয়েবসাইটে আছে...